সয়াবিন তেলের দাম বেশি নিলে ফোনদিন হটলাইন১৬১২১

নিউজ২৪লাইন:
ভোজ্যতেলে তেল নিয়ে সারাদেশে ব্যাপক অনিয়ম দেখাদিয়েছে বিশেষ করে সয়াবিন তেল খুচরা ব্যবসায়ীরা পাইকারি ব্যবসায়ীদের দোষারোপ করছে পাইকারি ব্যবসায়ীরা কোম্পানিদের দোষারোপ করছে কোম্পানিগুলো আন্তর্জাতিক বাজারের বৃদ্ধির অজুহাত দেখাচ্ছে।
তাই সরকার এবার নির্ধারণ করে দিয়েছে
ভোজ্যতেলের তেলের ভিতরে বিশেষ করে সয়াবিন তেল
সরকার ঘোষিত দাম না মেনে ভোজ্যতেলের মূল্য বাড়িয়ে ক্রেতাদের ঠকিয়ে যাচ্ছেন কিছু অসাধু ব্যবসায়ীরা। কিছু কিছু ক্ষেত্রে বোতলের গায়ের দাম মুছে ক্রেতাদের কাছে অধিক দামে তেল বিক্রি করছেন তারা। এমন পরিস্থিতিতে বাজার মনিটরিংয়ে যৌথ অভিযান চালাচ্ছে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর। এরপরেও অনেকে গোপনে অতিরিক্ত দামে সয়াবিন তেল বিক্রি করছেন বলে অভিযোগ উঠেছে।

ক্রেতাদের কাছ থেকে অতিরিক্ত দাম নিলে ভোক্তা অধিদপ্তরের হটলাইনে কল করে অভিযোগ করার পরামর্শ দিয়েছেন অধিদপ্তরের কর্মকর্তরা। একই সঙ্গে তারা বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের নির্ধারিত দাম অর্থাৎ ন্যায্যমূল্যও জানিয়েছেন। শুক্রবার (১১ মার্চ) অধিদপ্তরের পরিচালক মনজুর মোহাম্মদ শাহরিয়ার সাংবাদিকদের এ তথ্য জানিয়েছেন।

তিনি জানান, গত ৬ ফেব্রুয়ারি বাণিজ্য মন্ত্রণালয় সয়াবিনের দাম নির্ধারণ করে দেয়। সরকারের নির্ধারণ করে দেওয়া বাজারমূল্য অনুযায়ী, প্রতি লিটার বোতলজাত সয়াবিনের সর্বোচ্চ খুচরামূল্য ১৬৮ টাকা এবং বোতলজাত ৫ লিটারের দাম ৭৯৫ টাকা। এছাড়া খোলা সয়াবিন প্রতি লিটার সর্বোচ্চ ১৪৩ টাকা এবং খোলা পাম অয়েল লিটারপ্রতি ১৩৩ টাকা।

মনজুর মোহাম্মদ শাহরিয়ার বলেন, ‘অনেকেই ভোজ্যতেলের প্রকৃত দাম সম্পর্কে ওয়াকিবহাল নয়। এটা প্রচার করা বেশি প্রয়োজন। কারও কাছ থেকে নির্ধারিত দামের বেশি নেওয়া হলে, আমাদের হটলাইন ১৬১২১ নম্বরে কল করে অভিযোগ জানাতে হবে। আমরা দ্রুত অসাধু ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করবো।’

Spread the love

পাঠক আপনার মতামত দিন