বঙ্গবন্ধু বাংলাদেশ প্রিমিয়াম লিগ (বিপিএল) এর পর্দা উঠবে আজ

নিউজ২৪লাইন:
বঙ্গবন্ধু বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ (বিপিএল) শুরু হচ্ছে আজ। মেহেদি মিরাজের চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স এবং সাকিব আল হাসানের ফরচুন বরিশালের মধ্যকার ম্যাচ দিয়ে দুপুর দেড়টায় পর্দা উঠবে টুর্নামেন্টের অষ্টম আসরের। দিনের অন্য ম্যাচে সন্ধ্যা সাড়ে ৬ টায় খেলবে মিনিস্টার গ্রুপ ঢাকা ও খুলনা টাইগার্স। বাকি দুই দল কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স ও সিলেট সানরাইজার্স মুখোমুখি হবে পরদিন দুপুর সাড়ে ১২টায়।

বিপিএলের প্রথম দিনের দুই ম্যাচের চার দলের ক্রিকেটারে ভরপুর। বাহারি রঙের জার্সিতে ব্যাট বলের উৎসবের আমেজ। বিদেশী নামীদামী তারকারা এখনও না আসায়, দেশী তারকায় উত্তাপ ছড়াচ্ছে অষ্টম আসর। মাশরাফী ইনজুরিতে থাকায়, প্রথম দিনেরই মাঠে নামছে বাকি চার পান্ডব। তাড়াহুড় করে বিপিএলের আয়োজন, যথেষ্ট প্রস্তুতি আর কম্বিনেশন নিয়ে মাঠে নামতে পারছে না দলগুলো।

ঢাকায় পাঁচ দিনে ৮টি ম্যাচ শেষে ২৮ জানুয়ারি থেকে ১ ফেব্রুয়ারি চট্টগ্রামে হবে ৮ ম্যাচ। এরপর ৩ ও ৪ ফেব্রুয়ারি ঢাকায় আবার হবে চার ম্যাচ। ৭-১২ ফেব্রুয়ারি সিলেটে হবে রাউন্ড রবিনের বাকি ১০ ম্যাচ। ৩০ ম্যাচের প্রথম পর্বের শীর্ষ দু’দল ১৪ ফেব্রুয়ারি সন্ধ্যায় মিরপুরে খেলবে প্রথম কোয়ালিফায়ার। সেদিন দুপুরে হবে তৃতীয় ও চতুর্থ স্থানীয় দলের মধ্যে এলিমিনেটর। এই ম্যাচের জয়ী ও প্রথম কোয়ালিফায়ারের পরাজিত দল দ্বিতীয় কোয়ালিফায়ার খেলবে ১৬ ফেব্রুয়ারি সন্ধ্যায়। ১৮ ফেব্রুয়ারি ফাইনাল।

শরীয়তপুরে শতভাগ ভোট হওয়া ফলাফল স্থগিত করলো হাইকোর্ট

নিউজ২৪লাইন:
গত ৫ জানুয়ারি অনুষ্ঠিত শরীয়তপু‌রের ন‌ড়িয়া উপ‌জেলার ডিঙ্গামা‌নিক ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল না হওয়া পর্যন্ত গেজেট প্রকাশে স্থগিত করেছেন হাইকোর্ট।

পাশাপাশি ইউ‌নিয়ন‌টির ৩নং কেন্দ্রে ভোটের ফলাফল ২ রকম কেন? তাই ফলাফল কেন বাতিল হবে না মর্মে রুল জারি করে নির্বাচন কমিশনারকে প্রতিবেদনসহ জবাব দাখিল করতে নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট।

গতকাল বুধবার (১৯ জানুয়ারি) হাইকোর্টের বিভা‌গের এক‌টি দ্বৈত বেঞ্চ এই আদেশ দেন।

উল্লেখ্য যে, গত ৫ই জানুয়ারি ভুক্তভোগী চেয়ারম্যান প্রার্থী আ‌নোয়ার হো‌সেন খান অভিযোগ করেন, ৫ জানুয়ারি পঞ্চম ধাপের অনুষ্ঠিত ইউপি নির্বাচনে স্বাক্ষরিত ফলাফলের কাগজে ব্যাপক অ‌নিয়ম ক‌রে নি‌জে‌দের পছ‌ন্দের প্রার্থী‌কে বিজয়ী ঘোষণা ক‌রে‌ছেন দা‌য়িত্বপ্রাপ্ত রিটানিং কর্মকর্তা। যেখা‌নে একটি কেন্দ্রে ভোটার উপ‌স্থি‌তি দেখা‌নো হয়ে‌ছে শতভাগ। পরবর্তী‌তে বিষয়‌টি নি‌য়ে বি‌ভিন্ন গণমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশ হ‌লে পূ‌র্বের ফলাফল সং‌শোধন ক‌রে বেসরকারিভা‌বে প্রার্থীর নাম বিজয়ী ঘোষণা করেন রিটা‌নিং কর্মকর্তা

এ নি‌য়ে পরা‌জিত চেয়ারম্যান প্রার্থী আ‌নোয়ার হো‌সেন খান হাইকোর্ট ডি‌ভিশ‌নে (১৩ জানুয়ারি) একটি রিট দাখিল করেন। রিট নম্বর:- ১৯৮৩/২০২২।

গতকাল বুধবার (১৯ জানুয়ারি) বিজ্ঞ আদালত শুনানি শেষে নির্বাচন কমিশনারসহ নির্বাচনী সংশ্লিষ্ট ৮ জনের উপর রুল জারি ক‌রে আদেশ দেন। বাদী পক্ষের মামলা‌টি পরিচালনা করেন ব্যারিষ্টার ইলিয়াস হোসেন কচি।

ডিঙ্গামা‌নিক ইউ‌নিয়ন প‌রিষদের বর্তমান চেয়ারম্যান ও প‌রাজিত আনারস প্রতীকের প্রার্থী আ‌নোয়ার হো‌সেন খাঁন ব‌লেন, শতভাগ ‌ভোটকা‌ন্ড ঘ‌টি‌য়ে নির্বাচনী দা‌য়িত্বপ্রাপ্তরা মোটা অং‌কের টাকার বি‌নিম‌য়ে তাদের প্রছ‌ন্দের প্রার্থীকে বিজয়ী ঘোষণা ক‌রে‌ছেন। ‌আমি ‌নির্বাচন পরবর্তী এ নি‌য়ে সংবাদ স‌ম্মেলন ক‌রে‌ পূণরায় ভোট গ্রহ‌নের দাবী জা‌নি‌য়েছিলাম নির্বাচন ক‌মিশন‌কে।

এছাড়া নির্বাচনী বি‌ধি ভ‌ঙের দা‌য়ে ৩নং দেওজু‌রী কেন্দ্রের দা‌য়িত্বপ্রাপ্ত পিজাই‌ডিং কর্মকর্তা‌কেও শোকজ ক‌রা হ‌য়ে‌ছে। তাই আমি আমার ইউ‌নিয়‌নে ফলাফল স্থ‌গিত ‌চে‌য়ে হাই‌কো‌র্টে অ‌ভি‌যোগ ক‌রে‌ছি, আদালত আ‌বেদন মঞ্জুর ক‌রে‌ছে এবং ৪ সপ্তা‌হের ম‌ধ্যে নিবাচ‌নে সং‌শ্লিষ্ট‌দের জবাব দি‌তে বলা হ‌য়ে‌ছে। ‌আমি আমার ইউ‌নিয়‌নের আঠা‌রো হাজার ভোটা‌রের দাবী নি‌য়ে ন্যায় বিচার প্রার্থনা কর‌ছি।

এ‌ বিষ‌য়ে জেলা নির্বাচন অ‌ফি‌সার শেখ জা‌হিদের স‌ঙ্গে যোগা‌যোগ করা হ‌লে তি‌নি ব‌লেন, আদালত থে‌কে কোন নি‌র্দেশনা এ‌সে পৌঁছায়নি। আস‌লে আইন অনুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়া হ‌বে।

সুএ: সময়ের কন্ঠসর

১৪৪ ধারার দিন শেষ, দেশের মানুষ আজ ঐক্যবন্ধ : আমীর খসরু

নিউজ২৪লাইন:

চট্টগ্রাম – বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য সাবেক মন্ত্রী আমীর খসরু মাহমুদ বলেছেন, ১৪৪ ধারার দিন শেষ হয়ে গেছে। দফায় দফায় অনুমতি নিয়ে জনসভার দিন শেষ হয়ে গেছে। দেশের মানুষ আজ ঐক্যবন্ধ। কিছুতেই জনগণকে আটকে রাখা যাবে না।

আজ বুধবার দুপুরে কর্ণফুলী উপজেলার সিডিএ আবাসিক মাঠে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তি ও বিদেশে চিকিৎসার দাবিতে দক্ষিণ জেলা বিএনপির আয়োজিত সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

 

চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা বিএনপির আহ্বায়ক আবু সুফিয়ানের সভাপতিত্বে সভায় অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন বিএনপির চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা জয়নুল আবদিন ফারুক, কেন্দ্রীয় যুবদলের সভাপতি সাইফুল আলম, দক্ষিণ জেলা বিএনপির সাবেক সভাপতি জাফরুল ইসলাম চৌধুরী, চট্টগ্রাম মহানগর বিএনপির সদস্যসচিব আবুল হাশেম।

আমির খসরু মাহমুদ আরও বলেন ওমিক্রনের কথা বলে সভা-সমাবেশে নিষেধাজ্ঞা দিয়ে সরকার ক্ষমতা টিকিয়ে রাখতে পারবে না। আন্দোলনের মাধ্যমেই খালেদা জিয়াকে মুক্ত করা হবে।

 

এ সমাবেশে দক্ষিণ জেলা বিএনপির সদস্য সচিব মোস্তাক আহমেদ খানের সঞ্চলনায় চট্টগ্রামের আনোয়ারা, কর্নফুলী, পটিয়া, বাঁশখালী,বোয়ালখালী, সাতকানিয়া, লোহাগড়া, চন্দনাইশ উপজেলা থেকে নেতা-কর্মীরা সমাবেশে যোগ দেন।

সুত্র: সময়ের কন্ঠসর

উখিয়া কুতুপালং উচ্চ বিদ্যালয়ের অতিথিগণদের সম্মাননা প্রদান ও প্রীতিভোজ সম্পন্ন

কাজল আইচ, উখিয়া, কক্সবাজার।

 

কক্সবাজারের উখিয়া কুতুপালং উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রতিষ্টাতা, দাতা, সাবেক ও বর্তমান পরিচালনা কমিটি, সাবেক শিক্ষক এবং সম্মানিত অতিথিগণদের সম্মাননা প্রদান ও প্রীতিভোজ সহ শিক্ষার্থীদের পরিবেশনায় অনুষ্ঠিত হয়েছে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।

 

০৯ জানুয়ারি ২০২২, রবিবার বেলা সাড়ে ১১টায় কুতুপালং উচ্চ বিদ্যালয় প্রাঙ্গণে অনুষ্ঠিত হয়েছে সম্মানিত অতিথিগণদের সম্মাননা প্রদান ও প্রীতিভোজ অনুষ্ঠান। পরে শিক্ষার্থীদের পরিবেশনায় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানও অনুষ্ঠিত হয়েছে।

 

উক্ত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন উখিয়া-টেকনাফের মাননীয় সাবেক সংসদ সদস্য আলহাজ্ব আবদুর রহমান বদি। উখিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও রাজাপালং ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরী, কক্সবাজার জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সদস্য আবুল মনসুর চৌধুরী, হলদিয়া পালং ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ইমরুল কায়েস চৌধুরী ও অপরাপর উপস্থিত ছিলেন  সেন্টমার্টিন ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মুজিবুর রহমান, হ্নীলা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান রাশেদ মাহমুদ আলী, সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান জাফর আলম,উখিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক নুরুল হক খান, কুতুপালং সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি খায়রুল হক খান ও অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেছেন অত্র বিদ্যালয়ের সিনিয়র শিক্ষক রুপন দেওয়ানজি ও শিক্ষিকা রিতা বালা দে।

 

 

উখিয়া কুতুপালং উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রতিষ্টাতা, দাতা, সাবেক ও বর্তমান পরিচালনা কমিটি, সাবেক শিক্ষক এবং সম্মানিত অতিথিগণদের সম্মাননা প্রদান ও প্রীতিভোজ অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রেখেছেন

উখিয়া উপজেলার বিভিন্ন স্কুলের প্রধান শিক্ষক মন্ডলী ও বিদ্যালয়ের প্রতিষ্টাতা, দাতা, সাবেক ও বর্তমান পরিচালনা কমিটি এবং সাবেক শিক্ষক এবং সম্মানিত অতিথিবৃন্দদের ফুলের শুভেচ্ছা বিনিময় করে সম্মাননা ক্রেস প্রদান করে শিক্ষার্থীদের পরিবেশনায় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের মাধ্যেদিয়ে সম্পন্ন করা হয়েছে।

সারা বিশ্বে করোনায় কেড়ে নিয়েছে প্রায় ২০০০ গনমাধ্যম কর্মীর প্রাণ

নিউজ২৪লাইন:

আন্তর্জাতিক ডেস্ক :

করোনাভাইরাসে ২০২০ সালের মার্চ থেকে এ পর্যন্ত বিশ্বের ৯৪টি দেশে প্রায় দুই হাজার সাংবাদিক মারা গেছেন। এর মধ্যে ২০২১ সালে মারা গেছেন অন্তত এক হাজার ৪০০ জন। এ হিসাবে মাসে গড়ে ১১৬ জন ও দিনে প্রায় চারজন করে সাংবাদিক মারা গেছেন। বাংলাদেশে এ দুই বছরে করোনায় সাংবাদিক মারা গেছেন ৬৮ জন। সবচেয়ে বেশি সাংবাদিক মারা গেছেন দক্ষিণ আমেরিকার দেশ ব্রাজিলে। জেনেভাভিত্তিক সংগঠন প্রেস এমব্লেম ক্যাম্পেইন (পিইসি) শুক্রবার (৭ জানুয়ারি) এসব তথ্য জানিয়েছে।
এক বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, পিইসি ২০২০ সালের ১ মার্চ থেকে করোনায় সাংবাদিকদের মৃত্যুর বিষয়টি হিসাবে রাখছে। তাদের হিসাবে ২০২১ সালের ডিসেম্বর পর্যন্ত এক হাজার ৯৪০ জন সাংবাদিকের প্রাণ গেছে করোনায়। এর মধ্যে দক্ষিণ আমেরিকায়ই রয়েছে প্রায় অর্ধেক তথা ৯৫৫ জন। মারা যাওয়া সাংবাদিকদের তালিকায় এশিয়ায় ৫৫৬, ইউরোপে ২৬৩, আফ্রিকায় ৯৮ এবং উত্তর আমেরিকার দেশগুলোতে ৬৮ জন রয়েছেন। পিইসি সংশ্লিষ্ট দেশের গণমাধ্যম, সাংবাদিকদের জাতীয় সমিতি ও পিইসির আঞ্চলিক প্রতিনিধিদের তথ্যের ভিত্তিতে এ তালিকা করেছে।
পিইসি বলছে, মৃতদের এই তালিকার বাইরে আরও ৫০ জন রয়েছে। যাঁরা ঠিক করোনায় মারা গেছেন কিনা তা এখনো যাচাই বাছাই চলছে।
সংগঠনটির নেতৃবৃন্দের বিশ্বাস, করোনায় মারা যাওয়া সাংবাদিকদের সংখ্যা অবশ্যই আরও বেশি হবে। কারণ সাংবাদিকদের মৃত্যুর কারণ কখনো কখনো নির্দিষ্ট করা হয় না বা তাদের মৃত্যুর বিষয় ঘোষণা (বৃহৎ পরিসরে) দেওয়া হয় না। কিছু কিছু দেশে, কোনো নির্ভরযোগ্য তথ্য পাওয়া যায় না। পিইসির ভারতীয় প্রতিনিধি নাভা ঠাকুরিয়ার মতে, দক্ষিণ-এশিয়ার দেশগুলোয় করোনা মহামারিতে ৪০০ জনেরও বেশি গণমাধ্যম কর্মী প্রাণ হারিয়ে থাকতে পারে। কিন্তু তাদের মধ্যে শতাধিক ব্যক্তির করোনাজনিত মৃত্যুর বিষয়টি এখনো প্রমাণিত হয়নি।

টিকা আসার পর কমেছে প্রাণহানির সংখ্যা!

পিইসির মহাসচিব ব্লেইস লেম্পেন বলেছেন, ২০২১ সালের প্রথমার্ধে যে হারে করোনায় সাংবাদিকদের মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে তা টিকা আসার পর বছরের দ্বিতীয়ার্ধে কমেছে। পিইসি বলছে, ২০২১ সালের দ্বিতীয়ার্ধে করোনায় ২২৫ জন সাংবাদিকের মৃত্যুর তথ্য তারা নথিভুক্ত করে। এর মধ্যে ডিসেম্বরে ২৫ জন, নভেম্বরে ২৮, অক্টোবরে ২৭, সেপ্টেম্বরে ৩৩, আগস্টে ৪২ ও জুলাইয়ে ৭০ জন মারা যান। অথচ ২০২১ সালের প্রথমার্ধে এক হাজার ১৭৫ জন সাংবাদিক কোভিড-১৯ এ মারা যান।
পিইসি আশা করছে গত বছরের দ্বিতীয়ার্ধের মতো করোনায় সাংবাদিকদের মৃত্যুর নিম্নমুখী হার চলতি বছরেও অব্যাহত থাকবে। যদিও তারা করোনার নতুন ধরন অমিক্রনের বিষয়ে উদ্বিগ্ন। সংগঠনটি সব গণমাধ্যমকর্মীকে করোনার বুস্টার টিকা গ্রহণসহ প্রয়োজনীয় সতর্কতা অবলম্বনের আহ্বান জানিয়েছে।

সবচেয়ে বেশি মৃত্যু ব্রাজিল, ভারত ও পেরুতে!!

২০২০ সালের মার্চ থেকে ২০২১ সালের ডিসেম্বর পর্যন্ত করোনায় সবচেয়ে বেশি সাংবাদিক মারা গেছেন দক্ষিণ আমেরিকার দেশ ব্রাজিলে। সেখানে ২৯৫ জন গণমাধ্যমকর্মী মারা যান। ভারতে এ সংখ্যা কমপক্ষে ২৭৯ জন। এ ছাড়া পেরুতে ১৯৯, মেক্সিকোতে ১২২, কলম্বিয়ায় ৭৯ ও বাংলাদেশে ৬৮ জন সাংবাদিক মারা যান।
পিইসি জানিয়েছে এ সময়ে যুক্তরাষ্ট্রে কমপক্ষে ৬৬, ইতালিতে ৬১, ভেনেজুয়েলায় ৫৯, ইকুয়েডরে ৫১, আর্জেন্টিনায় ৪৭, ইন্দোনেশিয়ায় ৪২, রাশিয়ায় ৪২, ইরানে ৩৪, যুক্তরাজ্যে ৩৩, তুরস্কে ২৯, ডোমিনিকান রিপাবলিকে ২৯, পাকিস্তানে ২৭, নেপালে ২৩, মিশরে ২২, বলিভিয়ায় ২০, হন্ডুরাসে ১৯, দক্ষিণ আফ্রিকায় ১৯, স্পেনে ১৯ ও ইউক্রেনে ১৯ জন সাংবাদিক করোনায় মারা যান।
করোনায় পানামায় ১৭, পোল্যান্ডে ১৪, ফ্রান্সে ১১, গুয়াতেমালায় ১১, নাইজেরিয়ায় ১১, আফগানিস্তানে ১০, নিকারাগুয়ায় ১০, জিম্বাবুয়ে ১০, আলজেরিয়ায় ৯, কিউবা ৯, প্যারাগুয়ে ৮, ফিলিপাইনে ৭, উরুগুয়ে ৭, কাজাখস্তান ৫, রোমান ৫, কেনিয়ায় ৫, মরক্কোয় ৪, ক্যামেরুনে ৪ ও ইরাকে ৪ জন মারা যান। করোনাভাইরাসে আলবেনিয়া, আজারবাইজান, কোস্টারিকা, পর্তুগাল, সালভাদর ও সুইডেনে অন্তত ৩ জন করে সাংবাদিক মারা গেছেন।
পিইসি করোনায় দুজন করে সাংবাদিক মারা যাওয়ার তথ্য পেয়েছে অস্ট্রিয়া, বেলারুশ, বেলজিয়াম, বেনিন, বুলগেরিয়া, কানাডা, চিলি, জার্মানি, ঘানা, গ্রিস, গায়ানা, শ্রীলঙ্কা, সুইজারল্যান্ড ও উগান্ডায়।
আরও ৩০ দেশে অন্তত একজন করে সাংবাদিক করোনায় মারা গেছে বলে পিইসি নিশ্চিত হতে পেরেছে। দেশগুলো হলো, অ্যাঙ্গোলা, বার্বাডোজ, বসনিয়া, চেক প্রজাতন্ত্র, কঙ্গো গণতান্ত্রিক প্রজাতন্ত্র, ইসরায়েল, জ্যামাইকা, জাপান, জর্ডান, কিরগিজস্তান, কসোভো, লেবানন, লিথুনিয়া, মালয়েশিয়া, মালাউই, মালি, মালদোভা, মোজাম্বিক, মিয়ানমার, নিউজিল্যান্ড, নরওয়ে, ফিলিস্তিন, সৌদি আরব, দক্ষিণ কোরিয়া, থাইল্যান্ড, টোগো, তাজিকিস্তান, তিউনিসিয়া, সংযুক্ত আরব আমিরাত ও ইয়েমেন।

প্রধানমন্ত্রীর অনুদানের টাকা লোপাট করলেন তাঁতী লীগ সম্পাদক

 

ডি এম রবিন: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার করোনাকালীন অসহায় সাধারণ নেতা-কর্মীদের জন্য দেওয়া অনুদানের ১০ লাখ টাকা আত্মসাতের অভিযোগ পাওয়া গেছে। অভিযোগটি কেন্দ্রীয় তাঁতী লীগের সাধারণ সম্পাদক খগেন্দ্র চন্দ্র দেবনাথের বিরুদ্ধে। তাই তার বহিষ্কার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানিয়েছে অসহায় তাঁতী লীগের নেতাকর্মীগণ।

লিফলেটের মাধ্যমে জানা যায়, খগেন্দ্র চন্দ্র দেবনাথ অনুদানের টাকা অসহায় নেতা-কর্মীদের মধ্যে বিতরণ না করে নিজেই আত্মসাৎ করেন। এতে করে আওয়ামী লীগ ও তাঁতী লীগের সুনাম বিনষ্ট হয়েছে। তাই দুর্নীতিগ্রস্ত খগেন্দ্র চন্দ্র দেবনাথের বহিষ্কার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে তাঁতী লীগের দুস্থ অসহায় নেতা-কর্মীরা বিনীত দাবি জানাচ্ছি।

অভিযোগের বিষয়ে জানতে খগেন্দ্র চন্দ্র দেবনাথকে ফোন করা হলে তিনি বলেন, আমি জরুরি মিটিংয়ে আছি। পরে কথা হবে।

এ বিষয়ে তাঁতী লীগের সভাপতি আলহাজ্ব ইঞ্জিনিয়ার মো. শওকত আলী বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা করোনাকালীন আমাদের ১৪ লাখ টাকা প্রদান করেছেন। কিন্তু এই টাকার থেকে ৪ লাখ টাকা সাধারণ সম্পাদক খগেন্দ্র চন্দ্র দেবনাথ থেকে আমি আদায় করতে সক্ষম হই। যা বর্তমানে আমাদের সংগঠনের ফান্ডে জমা আছে।

মৃত বঙ্গবন্ধু জীবিত বঙ্গবন্ধুর চেয়ে শক্তিশালী: প্রধান বিচারপতি

নিউজ২৪লাইন:

মৃত বঙ্গবন্ধু জীবিত বঙ্গবন্ধুর চেয়ে শক্তিশালী বলে জানিয়েছেন নবনিযুক্ত প্রধান বিচারপতি হাসান ফয়েজ সিদ্দিকী। বিচারপতিরা বঙ্গবন্ধুকে সর্বোচ্চ শ্রদ্ধার আসনে রেখে তার আদর্শ বাস্তবায়নে কাজ করে যাচ্ছেন বলেও মন্তব্য করেন তিনি। শনিবার (১ জানুয়ারি) ধানমন্ডির ৩২ নম্বরে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা নিবেদনের পর সাংবাদিকদের কাছে এ মন্তব্য করেন তিনি। এর আগে বঙ্গবন্ধুর স্মৃতি বিজড়িত বাসভবন ঘুরে দেখেন প্রধান বিচারপতি। এ সময় আপিল বিভাগের বিচারপতি মো. নুরুজ্জামান ননী, বিচারপতি ওবায়দুল হাসান উপস্থিত ছিলেন।

 

প্রধান বিচারপতি বলেন, আমার মনে হয় ৭৫ এর ১৫ আগস্টে বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করা হয়েছে বটে, তিনি শাহাদাত বরণ করেছেন। কিন্তু বঙ্গবন্ধু বেঁচে থাকবেন মানুষের মধ্যে এবং বাংলার আনাচে কানাচে আমরা বঙ্গবন্ধুকে অনুভব করি। মৃত বঙ্গবন্ধু এখন জীবিত বঙ্গবন্ধুর চেয়ে অনেক বেশি শক্তিশালী। তিনি আরও বলেন, কিছুদিন আগে ১৫ আগস্টে আমরা সুপ্রিম কোর্টে অনুষ্ঠান করেছি। প্রত্যেকটা বিচারপতি উনাকে (বঙ্গবন্ধু) শ্রদ্ধা নিবেদন করে কথা বলেছেন। এখান থেকে আমার মনে হয় জীবিত বঙ্গবন্ধুর থেকে মৃত বঙ্গবন্ধু অনেক অনেক অনেক বেশি শক্তিশালী। যারা বঙ্গবন্ধুকে মারতে চেয়েছিলেন, কিন্তু বঙ্গবন্ধু মরেননি, আমাদের মনে জীবিত আছেন। এর আগে ৩০ ডিসেম্বর আপিল বিভাগের দ্বিতীয় জ্যেষ্ঠ বিচারপতি হাসান ফয়েজ সিদ্দিকীকে দেশের ২৩তম প্রধান বিচারপতি হিসেবে নিয়োগ দেয় সরকার। ২০১৩ সালের ২৮ মার্চ আপিল বিভাগের বিচারপতি হিসেবে নিয়োগ পান বিচারপতি হাসান ফয়েজ সিদ্দিকী।

 

 

1 2 3 339